শুক্রবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১২:০০ পূর্বাহ্ন

টিকা নিয়ে ‘হাস্যরস’, সেই যুবকের করোনায় মৃত্যু

প্রবাসের চোখ / ১ বার দেখেছেন
হালনাগাদ : সোমবার, ২৬ জুলাই, ২০২১, ১:৪৪ পূর্বাহ্ণ

করোনাভাইরাসের টিকা নিয়ে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে কটাক্ষ ও হাস্যরস করে বেশ পরিচিতি লাভ করেছিলেন যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়া অঙ্গরাজ্যের লস অ্যাঞ্জেলেসের বাসিন্দা স্টিফেন। কিন্তু সেই করোনাই তার জন্য কাল হয়ে দাঁড়াল। এ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মাস খানেকের মধ্যেই মারা যান তিনি।

রোববার (২৫ জুলাই) বিবিসির একটি প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে। ৩৪ বছর বয়সী ওই তরুণ সেখানকার হিলসং মেগাচার্চের সদস্য। এ ধর্মীয় গোষ্ঠীর সদস্যরা করোনার টিকা নেওয়ার পক্ষে না।
 
স্টিফেনদের ধর্মীয় রীতিনীতিতে করোনা টিকাকে অবমূল্যায়ন করা হয়। সে বিশ্বাস থেকে টিকাবিরোধী কার্যক্রমে বেশ পরিচিত লাভ করেছিলেন তিনি। টিকা না নেওয়ার জন্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বেশ প্রচার প্রচারণা চালিয়েছিলেন তিনি। সবশেষ গত জুনে এক টুইটে তিনি বলেন, ‘শুধু টিকাই নয়, আমার আরও ৯৯টি সমস্যা রয়েছে।’
এর পরেই করোনা আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন স্টিফেন। করোনায় তার ফুসফুস সংক্রমিত হয়, সেখান থেকে নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত হন তিনি। দীর্ঘ এক মাস মৃত্যুর সঙ্গে লড়াই করে হার মেনে অবশেষে গত বুধবার (২১ জুলাই) লস অ্যাঞ্জেলেসের একটি হাসপাতালে মারা যান স্টিফেন।
 
হাসপাতালের বিছানায় শুয়ে করোনার বিরুদ্ধে লড়াইয়ের একটি ছবি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে পোষ্ট করেছিলেন স্টিফেন। সেখানে তার অনুসারীদের কাছে দোয়া ও শুভকামনা চেয়েছিলেন। যেদিন মারা যান সেদিন সবশেষ টুইটে তিনি লেখেন, ‘জানি না কখন উঠে দাঁড়াতে পারব। দোয়া করবেন।’
 
অসুস্থ হওয়ার পরও একই রকম মানসিকতা ছিল স্টিফেনের। হাসপাতালের বিছানায় শুয়েও তিনি ধর্মকে বিশ্বাস করতেন আর বলতেন তার ধর্মই তাকে সুস্থ করে তুলবেন। তার সুস্থ হওয়ার জন্য টিকার কোনো প্রয়োজন নেই বলেও উল্লেখ করেন তিনি।
 
গত বৃহস্পতিবার (২২ জুলাই) হিলসং ধর্মীয় গোষ্ঠীর ব্রায়ান হিউস্টন সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে একটি পোষ্ট দিয়ে স্টিফেনের মৃত্যুর খবর নিশ্চিত করেন। সেখানে তিনি লেখেন, ‘আমাদের প্রিয় বন্ধু স্টিফেন করোনায় মারা গেছেন। এটা হৃদয়বিদারক!’
 
সম্প্রতি ক্যালিফোর্নিয়ায় করোনার সংক্রমণ ঊর্ধ্বগতির দিকে। জানা গেছে, দেশটিতে এ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে যারাই হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন তাদের কেউই করোনা টিকা নেননি।
 
করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ও প্রাণহানির পরিসংখ্যান রাখা ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডওমিটারের তথ্যানুযায়ী, করোনায় এখন পর্যন্ত সবচেয়ে বেশি সংক্রমণ ও মৃত্যু হয়েছে বিশ্বের ক্ষমতাধর দেশ যুক্তরাষ্ট্রে। তালিকায় শীর্ষে থাকা দেশটিতে এখন পর্যন্ত করোনায় সংক্রমিত হয়েছেন ৩ কোটি ৫১ লাখ ৮৪ হাজার ৬৪৭ জন। মৃত্যু হয়েছে ৬ লাখ ২৬ হাজার ৭১২ জনের।
 
এছাড়া বিশ্বে এখন পর্যন্ত মোট করোনায় মৃত্যু হয়েছে ৪১ লাখ ৬৭ হাজার ৯২৫ এবং আক্রান্ত হয়েছেন ১৯ কোটি ৪৩ লাখ ৭২ হাজার ২৪০ জন। এদের মধ্যে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ১৭ কোটি ৬৪ লাখ ৪৯ হাজার ৯৩৯ জন।

 


এই বিভাগের আরও খবর
Theme Created By Uttoronhost.com